Home / আন্তর্জাতিক / বোরখা পরা শুরু করেছেন ইহুদি নারীরা

বোরখা পরতে শুরু করেছেন বহু ইহুদি নারী। নিজেদের সম্মান ও মর্যাদাকে রক্ষা করতেই তারা বোরখা পরছেন।

দ্য ইসলামিক ইনফরমেশনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, নিজেদেরকে পাপমুক্ত রাখতে ও সম্ভ্রম বাঁচাতে মুসলিম নারীদের মতো ইহুদিরাও বোরখা পরা শুরু করেছেন। এই খবর প্রকাশের পরই বিশ্বব্যাপী তা সাড়া ফেলেছে।

ইসরাইলসহ পৃথিবীর বেশ কিছু অঞ্চলে ইহুদি নারীদের বোরখা পরা অবস্থায় দেখা গেছে। কিন্তু হঠাৎ মুসলিমদের ধর্মীয় পোশাককেই কেন বেছে নিলেন ইহুদিরা? একজন ইহুদি নারী এই প্রশ্নের জবাবে জানান, নিজের সতীত্ব ও পবিত্রতা রক্ষায় তারা বোরখা পরছেন।

তিনি আরো জানান, বোরকা এমন এক পোশাক যা মুসলিম বিশ্বের বেশিরভাগ নারী পরিধান করেন এবং এই পোশাক তাদেরকে নিরাপত্তা দেয়। সেই নিরাপত্তার কথা ভেবেই বোরখা পরা শুরু করেছেন ইহুদিরা।
ইহুদিদের বোরখা পরার বিষয়টিকে কিভাবে দেখেছেন ইসলামি স্কলাররা? বলছেন, শুধু ইসলাম প্রদত্ত পোশাকই নয়, ইসলামের সব বিধানই মানুষের নিরাপত্তা ও অধিকারকে সুনিশ্চিত করেছে।

Check Also

মার্কিন নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে তেহরানের সঙ্গে অস্ত্র বাণিজ্য করবে মস্কো

ইরানের ওপর থেকে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা উঠে যাওয়ার পর তেহরানের সঙ্গে অস্ত্র বাণিজ্য করতে প্রস্তুত আছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + three =