ধর্ম ও জীবন

পবিত্র কাবা শরিফ ও মসজিদে নববীতে সূর্যগ্রহণের নামাজ আদায়

সহীহ হাদীসের অনুসরণে পবিত্র নগরী মক্কার মসজিদুল হারাম তথা কাবা শরিফ ও মদিনার মসজিদে নববিতেও অনুষ্ঠিত হয়েছে সালাতুল কুসুফ তথা সূর্যগ্রহণের নামাজ।

রবিবার এশিয়ার কিছু দেশসহ বিশ্বের অনেক দেশে সূর্যগ্রহণ হয়েছে। সূর্যগ্রহণের সময় জামাআতের সঙ্গে নামাজ আদায়ের দিকনির্দেশনা রয়েছে হাদিসে।

আরবিতে সূর্যগ্রহণকে ‘কুসুফ’ বলা হয়। আর সূর্যগ্রহণের নামাজকে ‘সালাতুল কুসুফ’ বলা হয়। দশম হিজরিতে যখন মদিনায় সূর্যগ্রহণ হয়, তখন রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ঘোষণা দিয়ে লোকদেরকে নামাজের জন্য সমবেত করেছিলেন। সম্ভবত সে সময় তিনি জীবনের সর্বাধিক দীর্ঘ নামাজের জামাআতের ইমামতি করেছিলেন।

সূর্যগ্রহণের কারণে রোববার সকাল স্থানীয় সময় ৭টা ৪০ মিনিটে পবিত্র নগরী মক্কার মসজিদে হারামে তথা কাবা শরিফ চত্বরে সালাতুল কুসুফ আদায় করা হয়েছে।

যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে মুসল্লিদের সালাতুল কুসুফে অংশগ্রহণ করেছেন।

সালাতুল কুসুফের এ নামাজের ইমামতি করেন কাবা শরিফের প্রসিদ্ধ ইমাম ও খতিব শায়খ ড. ফয়সাল বিন মাজিল গাজাভি।

এদিকে মদিনায় সালাতুল কুসুফের নামাজের ইমামতি করেন প্রসিদ্ধ ইমাম ও খতিব শায়খ ড. আব্দুল্লাহ বুয়াইজান। পবিত্র দুই মসজিদে সালাতুল কুসুফের নামাজ আদায়ের আগে মসল্লিদের উদ্দেশ্যে দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য দেন দুই ইমাম।

এই জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 − two =

Back to top button