রাজনীতি

“সরকারের সিদ্ধান্ত গ্রহণে ধীরগতি ও সমন্বয়হীনতার কারণে অনেক মানুষকে প্রাণ দিতে হয়েছে”

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ও গণফোরাম সভাপতি ড.কামাল হোসেন বলেছেন, করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সরকারের সিদ্ধান্ত গ্রহণে ধীরগতি ও সমন্বয়হীনতার কারণে অনেক মানুষকে প্রাণ দিতে হয়েছে গণফোরামের সাবেক কমিটির নির্বাহীর সভাপতি সুব্রত চৌধুরী গণফোরামের মুখপাত্র পরিচয়ে ড.কামাল হোসেনের বিবৃতিটি গণমাধ্যমে পাঠান।

সোমবার এক বিবৃতিতে এ অভিযোগ করেন তিনি।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘করোনা মোকাবিলায় সিদ্ধান্ত গ্রহণের ক্ষেত্রে ধীরগতি ও সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে সমন্বয়হীনতায় আমাদের অনেক মানুষকে প্রাণ দিতে হয়েছে। ৫০ হাজারের মতো মানুষ আক্রান্ত। অজানা আতঙ্কে আছে বাংলাদেশের ১৭ কোটি মানুষ। আক্রান্তের সংখ্যা প্রতিদিন আরও বাড়বে এবং ভয়াবহ পরিস্থিতির দিকে যাবে এমনটাই বিশেষজ্ঞগণ আশংকা করছেন। অর্থনৈতিক মন্দা ধীরে ধীরে কাটিয়ে ওঠা সম্ভব কিন্তু মানুষের জীবন রক্ষা করাটাই এখন জরুরি।’

কামাল হোসেন বলেন, ‘লকডাউন কার্যকর না করা, আইন প্রয়োগে শিথিলতা, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীদের দায়িত্বহীন বক্তব্য, শ্রমিক ও সাধারণ মানুষকে ঢাকা থেকে গ্রামে যেতে দেওয়া, আবার ঢাকায় ফিরিয়ে আনা সঠিক সময়ে সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণে সময়ক্ষেপণ, সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে সমন্বয়হীনতা, স্বাস্থ্যখাতে বিশৃঙ্খলা অব্যবস্থাপনা আমাদের জীবন ও জীবিকাকে ভয়াবহ পরিস্থিতির দিকে ঠেলে দিয়েছে।’

গণপরিবহন চালু করা নিয়ে প্রশ্ন তুলে তিনি বলেন, ‘স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতামত উপেক্ষা করে সম্প্রতি যথাযথ পরিকল্পনা ছাড়াই বাস, রেলপথ, লঞ্চসহ সকল পরিবহন চালু করা হলো কোন মহলের স্বার্থে? যা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়।’

এই জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

19 + 20 =

Back to top button