Lead Newsতথ্যপ্রযুক্তি

ডিজিটালাইজেশনের বড় চ্যালেঞ্জ সচেতনতার অভাবঃ মোস্তফা জব্বার

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, ডিজিটালাইজেশনের বড় চ্যালেঞ্জ হচ্ছে সচেতনতার অভাব। জনগণকে ডিজিটাল প্রযুক্তির সঙ্গে ব্যাপকভাবে সম্পৃক্ততা করার পাশাপাশি প্রযুক্তি বিষয়ে শিক্ষিত করা অপরিহার্য।

শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) ঢাকায় বিসিএস কম্পিউটার সিটি প্রতিষ্ঠার ২২ বছরে পদার্পণ উপলক্ষে ‘বিসিএস কম্পিউটার সিটি ব্যবস্থাপনা কমিটি’ আয়োজিত অনুষ্ঠানমালার ভার্চুয়াল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, “দেশে মোট মোবাইল ফোন ব্যবহারকারীদের শতকরা ৩৫ ভাগ স্মার্টফোন ব্যবহার করেন। সারাদেশে ফোরজি নেটওয়ার্ক ও ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সংযোগ সম্প্রসারিত হওয়ায় খুব দ্রুত স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়ে শতকরা ৮৫ ভাগ থেকে ৯০ ভাগে উন্নীত হবে বলে তিনি জানান।”

এসময় বিসিএসের সাবেক সভাপতি মোস্তাফা জব্বার ১৯৮৭ সালের পর থেকে কম্পিউটার প্রযুক্তি ও এর ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে জনগণকে সচেতন ও সম্পৃক্ত করতে ঢাকা ও ঢাকার বাইরে কম্পিউটার মেলাসহ বিসিএসের নানা উদ্যোগের কথা তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, “২০০৮ সালে দেশে মাত্র আট জিবিপিএস ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ ব্যবহার হতো, বর্তমানে তা সাড়ে ২৬০০ জিবিপিএসে উন্নীত হয়েছে।এসময় তিনি কম্পিউটার জনপ্রিয় করতে সংবাদমাধ্যমের ভূমিকা ও বিসিএসের তৎকালীন নেতাদের অবদান শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করেন।”

তিনি তথ্যপ্রযুক্তি বিকাশে জামিলুর রেজা চৌধুরীর (জেআরসি) রিপোর্ট বাস্তবায়নে বিসিএসের অবদান তুলে ধরে বলেন, “কমিটির ৪৫টি রিপোর্টের মধ্যে ২৮টি রিপোর্ট বাস্তবায়নে বিসিএস ভূমিকা পালন করে।

অনুষ্ঠানে বিসিএস সভাপতি শাহিদ-উল মুনীর, সাবেক সভাপতি আব্দুল্লাহ এইচ কাফি, আহমেদ হাসান জুয়েল, সবুর খান, যুক্তরাষ্ট্র থেকে সাবেক সাধারণ সম্পাদক মুনেম রানা, বিসিএস সাধারণ সম্পাদক মনিরুল ইসলাম মনি, বিসিএস নেতা ভূইয়া এনাম লেলিন, রফিকুল আনোয়ার, হাবিবুর রহমান শাহীন, মঈনুল ইসলাম মইন প্রমুখ বক্তব্য দেন।

এই জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

nine + two =

Back to top button